২৬ বছর পর পলাতক আসামী আটক

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৩:২৫:৩৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৯ এপ্রিল ২০২৩
  • ১৬৬৭ বার পড়া হয়েছে

পারিবারিক কলহের জের ধরে ফেনী জেলার পরশুরাম থানা এলাকায় স্ত্রীকে হত্যার দায়ে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামী মো. ইব্রাহীম ওরফে মুন্সী মিয়া (৫৯) কে গাজীপুরের গাছা থেকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

র‌্যাব জানিয়েছে, গ্রেফতারকৃত ইব্রাহীম মিয়া ফেনী জেলার পরশুরাম থানার উত্তর কাউতলী গ্রামের মৃত আলী আহম্মদের পুত্র। ১৯৯৭ সালে স্ত্রীকে হত্যার দায়ে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামী সে। এ ঘটনার পর সৌদি আবর থেকে সে দীর্ঘ ২৫ বছর পর দেশে ফিরে আসে। এছাড়া দীর্ঘ ২৬ বছর যাবৎ পলাতক জীবনযাপন করে আসছিল সে।

আজ  সকালে র‌্যাব-৩ এর কমান্ডিং অফিসার (অধিনায়ক) লে. কর্ণেল আরিফ মহিউদ্দিন আহমেদ বাসস’কে এসব তথ্য জানান।
এদিকে, র‌্যাব-৩ এর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার স্টাফ অফিসার (মিডিয়া) ফারজানা হক বাসস’কে জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৩ এর একটি দল শুক্রবার গভীর রাতে গাজীপুরের গাছা থানা এলাকায় ঝটিকা অভিযান চালিয়ে পলাতক মো. ইব্রাহীম ওরফে মুন্সী মিয়াকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।

ফারজানা হক জানান, ১৯৯৭ সালে পারিবারিক কলহের জের ধরে নিজ স্ত্রী’কে ধারালো ছুরি দিয়ে জবাই করে হত্যা করে ইব্রাহীম ওরফে মুন্সী। হত্যার পর তার বিরুদ্ধে ফেনী জেলার পরশুরাম থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়। মামলা দায়ের করার পর থেকে সে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর গ্রেফতার এড়াতে আত্মগোপনে চলে যায়।

 

দীর্ঘ বিচারিক প্রক্রিয়া শেষে বিজ্ঞ আদালত ওই হত্যা মামলায় আটক ইব্রাহিমের বিরুদ্ধে ১৯৯৯ সালে যাবজ্জীবন সাজা প্রদানের রায় ঘোষনা করেন।

সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার জানান, আত্মগোপনে থাকাকালীন সময়ের মধ্যে সে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর চোখে ফাঁকি দিয়ে একপর্যায়ে সৌদি আরব পাড়ি জমায়। সৌদি আবর থেকে সে দীর্ঘ ২৫ বছর পর দেশে ফিরে আসে। দেশে এসে ইব্রাহিম গাজীপুরের গাছা থানা এলাকায় আত্মগোপনে থাকে।

ট্যাগস :

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

২৬ বছর পর পলাতক আসামী আটক

আপডেট সময় : ০৩:২৫:৩৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৯ এপ্রিল ২০২৩

পারিবারিক কলহের জের ধরে ফেনী জেলার পরশুরাম থানা এলাকায় স্ত্রীকে হত্যার দায়ে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামী মো. ইব্রাহীম ওরফে মুন্সী মিয়া (৫৯) কে গাজীপুরের গাছা থেকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

র‌্যাব জানিয়েছে, গ্রেফতারকৃত ইব্রাহীম মিয়া ফেনী জেলার পরশুরাম থানার উত্তর কাউতলী গ্রামের মৃত আলী আহম্মদের পুত্র। ১৯৯৭ সালে স্ত্রীকে হত্যার দায়ে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামী সে। এ ঘটনার পর সৌদি আবর থেকে সে দীর্ঘ ২৫ বছর পর দেশে ফিরে আসে। এছাড়া দীর্ঘ ২৬ বছর যাবৎ পলাতক জীবনযাপন করে আসছিল সে।

আজ  সকালে র‌্যাব-৩ এর কমান্ডিং অফিসার (অধিনায়ক) লে. কর্ণেল আরিফ মহিউদ্দিন আহমেদ বাসস’কে এসব তথ্য জানান।
এদিকে, র‌্যাব-৩ এর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার স্টাফ অফিসার (মিডিয়া) ফারজানা হক বাসস’কে জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৩ এর একটি দল শুক্রবার গভীর রাতে গাজীপুরের গাছা থানা এলাকায় ঝটিকা অভিযান চালিয়ে পলাতক মো. ইব্রাহীম ওরফে মুন্সী মিয়াকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।

ফারজানা হক জানান, ১৯৯৭ সালে পারিবারিক কলহের জের ধরে নিজ স্ত্রী’কে ধারালো ছুরি দিয়ে জবাই করে হত্যা করে ইব্রাহীম ওরফে মুন্সী। হত্যার পর তার বিরুদ্ধে ফেনী জেলার পরশুরাম থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়। মামলা দায়ের করার পর থেকে সে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর গ্রেফতার এড়াতে আত্মগোপনে চলে যায়।

 

দীর্ঘ বিচারিক প্রক্রিয়া শেষে বিজ্ঞ আদালত ওই হত্যা মামলায় আটক ইব্রাহিমের বিরুদ্ধে ১৯৯৯ সালে যাবজ্জীবন সাজা প্রদানের রায় ঘোষনা করেন।

সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার জানান, আত্মগোপনে থাকাকালীন সময়ের মধ্যে সে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর চোখে ফাঁকি দিয়ে একপর্যায়ে সৌদি আরব পাড়ি জমায়। সৌদি আবর থেকে সে দীর্ঘ ২৫ বছর পর দেশে ফিরে আসে। দেশে এসে ইব্রাহিম গাজীপুরের গাছা থানা এলাকায় আত্মগোপনে থাকে।