চালের বস্তায় মিললো ৩৮ লাখ টাকা

  • অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৯:২০:৩৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৮ মে ২০২৩
  • ১৬৭৪ বার পড়া হয়েছে

লালমনিরহাটের তিস্তা টোল প্লাজায় ঢাকাগামী একটি বাসে তল্লাশি চালিয়ে চালের বস্তায় থাকা ৩৮ লাখ টাকা জব্দ করেছে সদর থানা পুলিশ। রোববার (২৮ মে) দুপুরে নিয়মিত তল্লাশির অংশ হিসেবেই এসব টাকা পাওয়া যায়।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এরশাদুল আলম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এ ঘটনায় কুড়িগ্রামের উলিপুর উপজেলার সাবেদ আলীর পুত্র মমিনুল ইসলামকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, কুড়িগ্রাম থেকে ছেড়ে আসা ঢাকাগামী নাবিল পরিবহনের বাসটিকে নিয়মিত তল্লাশীর অংশ হিসেবে টোল প্লাজায় তল্লাশি করা হয়। এসময় একটি চাউলের বস্তা সন্দেহজনক মনে হয়। উপস্থিত পুলিশ সদস্যরা বস্তা খুলে ভালভাবে তল্লাশি চালিয়ে তার ভেতর থেকে ৩৮ লাখ টাকা পান।

এসময় সন্দেহজনক বস্তার মালিককে আটক করা হয়।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এরশাদুল আলম বলেন, চাউলের বস্তায় সন্দেহজনক ৩৮ লাখ টাকা জব্দ করা হয়েছে। এসময় একজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। তবে তার দাবী, মামার কনস্ট্রাকশন কাজের লেনদেনের টাকা নিয়ে ঢাকা যাচ্ছিলো। বিষয়টি আরও খোঁজ নিয়ে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ট্যাগস :

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

চালের বস্তায় মিললো ৩৮ লাখ টাকা

আপডেট সময় : ০৯:২০:৩৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৮ মে ২০২৩

লালমনিরহাটের তিস্তা টোল প্লাজায় ঢাকাগামী একটি বাসে তল্লাশি চালিয়ে চালের বস্তায় থাকা ৩৮ লাখ টাকা জব্দ করেছে সদর থানা পুলিশ। রোববার (২৮ মে) দুপুরে নিয়মিত তল্লাশির অংশ হিসেবেই এসব টাকা পাওয়া যায়।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এরশাদুল আলম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এ ঘটনায় কুড়িগ্রামের উলিপুর উপজেলার সাবেদ আলীর পুত্র মমিনুল ইসলামকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, কুড়িগ্রাম থেকে ছেড়ে আসা ঢাকাগামী নাবিল পরিবহনের বাসটিকে নিয়মিত তল্লাশীর অংশ হিসেবে টোল প্লাজায় তল্লাশি করা হয়। এসময় একটি চাউলের বস্তা সন্দেহজনক মনে হয়। উপস্থিত পুলিশ সদস্যরা বস্তা খুলে ভালভাবে তল্লাশি চালিয়ে তার ভেতর থেকে ৩৮ লাখ টাকা পান।

এসময় সন্দেহজনক বস্তার মালিককে আটক করা হয়।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এরশাদুল আলম বলেন, চাউলের বস্তায় সন্দেহজনক ৩৮ লাখ টাকা জব্দ করা হয়েছে। এসময় একজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। তবে তার দাবী, মামার কনস্ট্রাকশন কাজের লেনদেনের টাকা নিয়ে ঢাকা যাচ্ছিলো। বিষয়টি আরও খোঁজ নিয়ে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।