রবিশপের নাম ও লোগো ব্যবহার করে অভিনব প্রতারণা

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০১:০৪:১৬ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২০ জুলাই ২০২৩
  • ১৬৫৮ বার পড়া হয়েছে

রবিশপের নাম ও লোগো ব্যবহার করে ই-কমার্স সাইট বানিয়ে প্রতারণার নতুন ফাঁদ পেতেছিল আল ইমরান জুয়েল। ভুয়া ওয়েবসাইটটি কারিগরি দিক বিবেচনায় এতটাই দক্ষতার সঙ্গে তৈরি করা হয়েছিল যে সাধারণ মানুষ সহজেই প্রতারিত হতেন। নিজেদের আড়াল করার জন্য প্রতারক চক্রটি সাধারণ গ্রাহকদের হেল্পলাইন নাম্বার হিসেবে অনলাইন টেলিফোন সার্ভিস ব্রিলিয়ান্টের একটি নাম্বার সরবরাহ করতো। এছাড়া বিশ্বাসযোগ্যতা বাড়ানোর জন্য তারা robishoper.com ওয়েবসাইটে দাপ্তরিক একটি ঠিকানাও দিয়েছিল।

বুধবার রাতে নোয়াখালীতে এক অভিযানে প্রতারক আল ইমরান জুয়েল কে গ্রেফতার করে সিটিটিসির সাইবার ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন বিভাগ। এ সময় তার কাছ থেকে প্রতারণার কাজে ব্যবহৃত নকল রবিশপ ওয়েবসাইটের ব্যাক আপ কপি সংবলিত একটি পেনড্রাইভ জব্দ করা হয়।

সিটিটিসি জানায়, ই-কমার্স সাইট রবিশপের ওয়েবসাইট robishop.com.bd এর অনুকরণে robishoper.com নামক ভুয়া ওয়েবসাইট ও Robi Bangladesh নামে ফেসবুক পেইজ তৈরী করে আল ইমরান জুয়েল। দীর্ঘদিন ধরে সাধারণ ভোক্তাদের কাছে পণ্য বিক্রয়ের নামে অর্থ আত্মসাৎ করে আসছিলেন তিনি। এ বিষয়ে দেশের অন্যতম বৃহত্তম মোবাইল ফোন অপারেটর রবি বাংলাদেশ কর্তৃপক্ষ ১০ জুলাই গুলশান থানায় একটি মামলা করে। মামলাটি তদন্তের ধারাবাহিকতায় প্রতারক চক্রটিকে শনাক্ত করে মূলহোতা জুয়েলকে গ্রেফতার করা হয়।

জানা যায়, এই গ্রুপটি অর্থ পরিশোধের মাধ্যম হিসেবে নকল ওয়েবসাইটে একেক সময় একেক নাম্বার দিয়ে অর্থ আত্মসাৎ করতো। এভাবে খুব অল্প সময়েই চক্রটি প্রতারণার মাধ্যমে ৫০ লাখের বেশি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। গ্রেফতার জুয়েল একজন দক্ষ ওয়েব ডেভেলপার এবং তিনি এই চক্রের মূল হোতা ও এই ওয়েবসাইটটির ডিজাইনার।

সিটিটিসির সাইবার ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন বিভাগের সহকারী পুলিশ কমিশনার মো. আরিফুল হোসেইন তুহিন জানান, ইতোপূর্বেও এই প্রতারক চক্রটি বিভিন্ন স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠানের নামের সঙ্গে মিল রেখে ভুয়া ওয়েবসাইট যেমন- daraz.cl, realme.city বানিয়ে সাধারণ ভোক্তাদের সঙ্গে প্রতারণা করেছিল। গ্রেফতার জুয়েলকে গুলশান থানায় করা মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে ৭ দিনের রিমান্ড আবেদন করে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

রবিশপের নাম ও লোগো ব্যবহার করে অভিনব প্রতারণা

আপডেট সময় : ০১:০৪:১৬ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২০ জুলাই ২০২৩

রবিশপের নাম ও লোগো ব্যবহার করে ই-কমার্স সাইট বানিয়ে প্রতারণার নতুন ফাঁদ পেতেছিল আল ইমরান জুয়েল। ভুয়া ওয়েবসাইটটি কারিগরি দিক বিবেচনায় এতটাই দক্ষতার সঙ্গে তৈরি করা হয়েছিল যে সাধারণ মানুষ সহজেই প্রতারিত হতেন। নিজেদের আড়াল করার জন্য প্রতারক চক্রটি সাধারণ গ্রাহকদের হেল্পলাইন নাম্বার হিসেবে অনলাইন টেলিফোন সার্ভিস ব্রিলিয়ান্টের একটি নাম্বার সরবরাহ করতো। এছাড়া বিশ্বাসযোগ্যতা বাড়ানোর জন্য তারা robishoper.com ওয়েবসাইটে দাপ্তরিক একটি ঠিকানাও দিয়েছিল।

বুধবার রাতে নোয়াখালীতে এক অভিযানে প্রতারক আল ইমরান জুয়েল কে গ্রেফতার করে সিটিটিসির সাইবার ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন বিভাগ। এ সময় তার কাছ থেকে প্রতারণার কাজে ব্যবহৃত নকল রবিশপ ওয়েবসাইটের ব্যাক আপ কপি সংবলিত একটি পেনড্রাইভ জব্দ করা হয়।

সিটিটিসি জানায়, ই-কমার্স সাইট রবিশপের ওয়েবসাইট robishop.com.bd এর অনুকরণে robishoper.com নামক ভুয়া ওয়েবসাইট ও Robi Bangladesh নামে ফেসবুক পেইজ তৈরী করে আল ইমরান জুয়েল। দীর্ঘদিন ধরে সাধারণ ভোক্তাদের কাছে পণ্য বিক্রয়ের নামে অর্থ আত্মসাৎ করে আসছিলেন তিনি। এ বিষয়ে দেশের অন্যতম বৃহত্তম মোবাইল ফোন অপারেটর রবি বাংলাদেশ কর্তৃপক্ষ ১০ জুলাই গুলশান থানায় একটি মামলা করে। মামলাটি তদন্তের ধারাবাহিকতায় প্রতারক চক্রটিকে শনাক্ত করে মূলহোতা জুয়েলকে গ্রেফতার করা হয়।

জানা যায়, এই গ্রুপটি অর্থ পরিশোধের মাধ্যম হিসেবে নকল ওয়েবসাইটে একেক সময় একেক নাম্বার দিয়ে অর্থ আত্মসাৎ করতো। এভাবে খুব অল্প সময়েই চক্রটি প্রতারণার মাধ্যমে ৫০ লাখের বেশি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। গ্রেফতার জুয়েল একজন দক্ষ ওয়েব ডেভেলপার এবং তিনি এই চক্রের মূল হোতা ও এই ওয়েবসাইটটির ডিজাইনার।

সিটিটিসির সাইবার ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন বিভাগের সহকারী পুলিশ কমিশনার মো. আরিফুল হোসেইন তুহিন জানান, ইতোপূর্বেও এই প্রতারক চক্রটি বিভিন্ন স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠানের নামের সঙ্গে মিল রেখে ভুয়া ওয়েবসাইট যেমন- daraz.cl, realme.city বানিয়ে সাধারণ ভোক্তাদের সঙ্গে প্রতারণা করেছিল। গ্রেফতার জুয়েলকে গুলশান থানায় করা মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে ৭ দিনের রিমান্ড আবেদন করে আদালতে পাঠানো হয়েছে।